শিরোনাম

ময়মনসিংহ স্টেডিয়াম মাতালো শেকড়ের সন্ধানে মেগা কনসার্ট

সর্বশেষ আপডেটঃ ০৮:২৬:৩৪ পূর্বাহ্ণ - ০৯ নভেম্বর ২০১৮ | ২৯
ময়মনসিংহের রফিক উদ্দিন ভূঞা স্টেডিয়ামে অনেকদিন পর মাঠ আর গ্যালারি উপচেপড়া দর্শক দেখা গেলো। তবে কোন ফুটবল কিংবা ক্রিকেটের টানে নয়, স্টেডিয়ামমুখী লাখো মানুষের স্রোত মেগা কনসার্ট ঘিরে।
বৃহস্পতিবার বিকেল ৪ থেকে রাত ১১টা পর্যন্ত সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের আয়োজনে ‘শেকড়ের সন্ধানে’ মেগা কনসার্টকে ঘিরে ময়মনসিংহ নগরীর এ স্টেডিয়ামে তারুণ্যের বাঁধভাঙা উচ্ছ্বাসের পাশাপাশি ছিলো সব বয়সী মানুষের স্রোত।
এ পর্বে দেশের স্বনামধন্য শিল্পীবৃন্দ বিদেশি প্রতিথযশা মিউজিশিয়ানদের সমন্বয়ে সংগীত পরিবেশন করবেন। কনসার্টের আরেকটি আকর্ষণীয় দিক হলো বর্ণিল ও মনোমুগ্ধকর ফায়ারওয়ার্কস। সন্ধ্যা ৬টা হতে এ অনুষ্ঠান সরাসরি সম্প্রচার করেন কনসার্টের মিডিয়া পার্টনার স্যাটেলাইট চ্যানেল গান বাংলা টেলিভিশন।
সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের ফাঁকে ফাঁকে বর্তমান সরকারের বিভিন্ন জনকল্যাণমূলক ও উন্নয়ন কর্মকাণ্ডের প্রামাণ্য ভিডিওচিত্র প্রদর্শন করা হয়। এছাড়া প্রধানমন্ত্রীর দশটি বিশেষ উদ্যোগের ভিডিও তথ্যচিত্র অনুষ্ঠানে প্রদর্শিত হয়।
কনসার্টে তাপস-‘আছেন আমার মুক্তার, চার ছক্কা হইহই, রেশমি-কমলায় নৃত্য করে, পুলক- থাকতে যদি, ঐশী-নিজাম উদ্দিন আউলিয়া, রিংকু-কানার হাট বাজার, শামীম-স্বাদের লাউ, চিশতি বাউল-বেহায়া মন, কুদ্দুস বয়াতী-পাগলা ঘোড়া, ফকির শাহাবুদ্দিন-পাল তুলে দে গান পরিবেশন করেন।
হালের আরেক জনপ্রিয় ক্রেজ কণ্ঠশিল্পী হৃদয় খানের কণ্ঠে শোনা যায়- কী জ্বালা, অবুঝ ভালোবাসা এবং চাই না মেয়ে তুমি’র মতো গান গেয়ে মুগ্ধ করেন শ্রোতাদের।
তাপসের গানে শুরুতেই কনসার্ট জমে ওঠলেও শেষটা হয় বিরহী সুরে, হৃদয় ভাঙার গান দিয়ে। এলআরবি’র ‘চলো বদলে যাই’ দিয়ে সাঙ্গ হয় উপভোগ্য এই মিলনমেলা।
মারিয়া নুরের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত মেগা কনসার্টের সমন্বয়কারী শিল্পী কৌশিক হোসেন তাপস বললেন, আইয়ুব বাচ্চু ভাইয়ের শূন্যতা আকাশের চেয়েও অসীম। তাকে ছাড়া যে অপূর্ণতা তা পূরণ কখন হবে জানি না।
অনুষ্ঠানের শুরুতে উপমহাদেশের প্রখ্যাত গিটারিস্ট এলআরবি ব্যান্ডের প্রতিষ্ঠাতা আইয়ুব বাচ্চু স্মরণে একমিনিট নীরবতা পালন করা হয়। এ কনসার্টে আইয়ুব বাচ্চুর অংশগ্রহণের কথা ছিল। তার অকাল মৃত্যুতে স্মৃতিচারণ করেন শিল্পী, কলাকুশলী, কর্মকর্তা ও দর্শকরা।
সর্বশেষ
জনপ্রিয় খবর