শিরোনাম

মহামারী দুর্যোগে সার্বক্ষনিক জনসেবা দিয়ে যাচ্ছেন  সিটি মেয়র টিটু।

সর্বশেষ আপডেটঃ ১২:৩৬:১৮ পূর্বাহ্ণ - ০৫ জুন ২০২০ | ৮৬
মোঃ মাসুদ রানাঃ–
মহামারী দুর্যোগে সার্বক্ষনিক জনসেবা দিয়ে যাচ্ছেন  সিটি মেয়র টিটু। ময়মনসিংহ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন এক অচেনা নারী ময়মনসিংহ সিটি মেয়র ইকরামল হক টিটুর কাছে হঠাৎ ফোন করে সাহায্যের কথা বলেন।ফোন করে রক্তের প্রয়োজনের কথা বলে সেই নারী এর আগে প্রসবের সময় সন্তান মারা যাওয়ার ঘটনা ঘটা পরিবারটি এবারও আতঙ্কগ্রস্ত হয়ে পড়ে।
মেয়র টিটু ফোন পেয়েই সেই নারীর রক্তের ব্যবস্থা করার জন্য মেয়র ইকরামুল হক টিটু তৎক্ষনাৎ  ব্যবস্থা করা থেকে শুরু করে কিছু ফলমূল দিয়ে  হাসপাতালে থাকা সেই নারীর কাছে স্বেচ্ছাসেবী টিমের দ্বারা জরুরী ভিত্তিতে পাঠান। গত  মাসের  ঘটনা এটি। এভাবে মানুষের দিকে কর্তব্য,সাহয্য ও সহায়তার হাত বাড়িয়েছেন ময়মনসিংহের সিটি মেয়র ইকরামুল টিটু।বিভিন্ন বিপদে- আপদে নগরবাসীর আশা- ভরসার মানুষ হয়ে উঠেছেন তিনি।
করোনা ভাইরাস সংকটে শুরু থেকেই তিনি জন সচেতনতামূলক কাজ করেছেন।প্রতিনিয়ত জীবানুনাশক পানি ছিটানো, হাত ধোয়ার ব্যবস্থা করা থেকে শুরু করে নাগরিকদের সচেতন করা এসব বিষয়ে তিনি একাই  মাঠে ছিলেন শুরু থেকেই। এরপর মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর পক্ষ থেকে যেসব খাদ্য সামগ্রী উপহার হিসেবে বিভিন্ন সময় এসেছে এগুলোর তালিকা করে নগরের বিভিন্ন  শ্রেণী-পেশার লোকদের কাছে তিনি নিজে পৌঁছে দিয়েছেন। অসহায় ও দরিদ্র মানুষদের ঘরে ঘরে গিয়ে খোজ খবর নিয়েছেন। বিনামূল্যে সবজি দিয়েছেন  নগরবাসীকে। স্বেচ্ছাসেবীদের সহায়তায় ওষুধ সহ জরুরি পণ্য  কয়েক হাজার নাগরিকের বাড়িতে পৌছানোর ব্যাবস্থা করেছেন তিনি।
তার ব্যক্তিগত উদ্যোগও ছিল নিয়মিত সাহায্য সহযোগিতা । নগরবাসীর স্বাস্থ্যবিধি নিরাপত্তার কথা মাথায় রেখে দ্রুততম সময়ে ব্রহ্মপুত্র নদের চরে সবজি বাজার স্থানান্তর করেছেন। চিকিৎসকদের জন্য পরিবহনের ব্যবস্থা করেছেন। বিভিন্ন সরকারি দপ্তর এবং মসজিদে জীবানুনাশক ফটকের ব্যবস্থা করেছেন। আবার একই সাথে তিনি নিজ দপ্তরকে রেখেছেন সচল ও সক্রিয়।
ডেঙ্গু নিধনেও তিনি গত মাস খানেক সময় ধরে পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতা কার্যক্রম জোরদার চালিয়ে যাচ্ছেন।আজবদি মশক নিধন কার্যক্রম অব্যাহত রয়েছে।
সর্বশেষ
জনপ্রিয় খবর