শিরোনাম

বিএনপির কারণে বিশ্বে দুর্নাম : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

সর্বশেষ আপডেটঃ ১২:০৮:০২ পূর্বাহ্ণ - ২৫ মার্চ ২০১৮ | ১৫১

নিজস্ব প্রতিবেদক : বিএনপির কারণে বিশ্বে বাংলাদেশের দুর্নাম হয়েছিল জানিয়ে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল বলেছেন, বর্তমান সরকার সুনাম ফিরিয়ে আনছে।
বঙ্গবন্ধু যে স্বপ্ন দেখেছিলেন, তার কন্যা শেখ হাসিনার হাত ধরেই এই সোনার বাংলা গড়ে উঠছে বলেও দাবি করেন মন্ত্রী।
শনিবার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের স্বোপার্জিত স্বাধীনতা চত্বরে ‘আলোকচিত্রে বঙ্গবন্ধু ও বাংলাদেশ’ শীর্ষক আলোচনায় প্রধান অতিথি হিসেবে যোগ দেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।
আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল বলেন, ‘বিএনপির শাসনামলে দেশ বিশ্বে দুর্নীতিতে তিনবার চ্যাম্পিয়ন ও একবার দ্বিতীয় স্থান অধিকার করেছিল। তাদের অদক্ষতা, অসততা ও দুর্নীতিপরায়ণতার কারণে দেশের দুর্নাম হয়েছিল সারা বিশ্বে।’
‘কিন্তু বর্তমান সময়ে বাংলাদেশ জননেত্রী শেখ হাসিনার সৎ, যোগ্য ও দক্ষ নেতৃত দিন দিন বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলার দিকে এগিয়ে যাচ্ছে।’
শেখ হাসিনাকে বিশ্বে তৃতীয় শ্রেষ্ঠ প্রধানমন্ত্রী হিসেবে দাবি করেন মন্ত্রী। একটি আন্তর্জাতিক সংস্থার জরিপে এটি পাওয়া গেছে বলেও দাবি তার।
মন্ত্রী বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, যাকে কোনদিন দুর্নীতি স্পর্শ করেনি, বিশ্বের অন্য কোন দেশে তার ব্যাংক একাউন্ট খুঁজে পাওয়া যায়নি, সেই নেত্রী সারা বিশ্বের প্রধানমন্ত্রীদের ওপর করা সমীক্ষায় তিনি তৃতীয় অবস্থানে আছেন।’
‘প্রথমে আছেন জার্মানির চ্যান্সেলর অ্যাঞ্জেলা মের্কেল, দ্বিতীয় অবস্থানে সিঙ্গাপুরের্ প্রেসিডেন্ট ও তৃতীয় অবস্থানে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।’
গত কয়েক সপ্তাহ ধরে সিঙ্গাপুরেভিত্তিক একটি কথিত গবেষণা প্রতিষ্ঠানের বরাত দিয়ে শেখ হাসিনাকে বিশ্বের দ্বিতীয় শ্রেষ্ঠ প্রধানমন্ত্রী আখ্যা দিয়ে সংবাদ প্রচার করে দেশের কয়েকটি গণমাধ্যম। আর এ জন্য মন্ত্রিসভা শেখ হাসিনাকে অভিনন্দনও জানিয়েছে।
অনুষ্ঠানে গত ২২ মার্চের আনন্দ আয়োজন নিয়ে বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভীর বক্তব্যকে ‘অত্যন্ত লজ্জাজনক’ আখ্যা দেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।
বাংলাদেশ উন্নয়ন শীল দেশের স্বীকৃতিপত্র পাওয়ায় গত বৃহস্পতিবার থেকে সপ্তাহব্যাপী অনুষ্ঠান শুরু হয়েছে বাংলাদেশে। সেদিন রুহুল কবির রিজভী এই আয়োজনকে আওয়ামী লীগ সরকারের ‘বিকৃত তামাশা’ বলেছিলেন।
অনুষ্ঠানে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য মীজানুর রহমান বিএনপির আর্দশ পাকিস্তানির দালালির আদর্শ আখ্যা দেন। বলেন, ‘দেশবিরোধী এই শক্তি যদি ক্ষমতায় আসে তাহলে বাংলাদেশ আবারও পূর্ব পাকিস্তানে রূপ নেবে।’
দুর্নীতির মামলায় খালেদা জিয়ার সাজার বিষয়ে মীজানুর বলেন, ‘অনেকেই টকশোতে বলেন খালেদা ছাড়াও দেশে অনেক ব্যক্তি হাজার হাজার কোটি টাকা চুরি করেছেন। কিন্তু তাদের কোন বিচার হয়নি। তবে কেন মাত্র আড়াই কোটি টাকার জন্য খালেদার বিচার হবে।’
‘আমি বলব, সাধারণ জনগণের চুরি আর দেশের প্রধানমন্ত্রীর চুরি এক নয়।’
ছাত্রলীগের সভাপতি সাইফুর রহমান সোহাগের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক হারুন অর রশিদ ও ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক মাহাফুজুল হায়দার চোধুরী রোটন প্রমুখ।
ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক এস এম জাকির হোসাইনের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ও জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের নেতারা উপস্থিত ছিলেন।

সর্বশেষ