শিরোনাম

বাংলাদেশ নারী দলের লক্ষ্য এখন সেমি-ফাইনাল

সর্বশেষ আপডেটঃ ০৪:১৯:৪৩ অপরাহ্ণ - ১৩ আগস্ট ২০১৮ | ৪০

আগের ম্যাচে পাকিস্তানকে ১৪-০ গোলে হারিয়েছিল বাংলাদেশের অনূর্ধ্ব-১৫ নারী দল। সেই দুর্দান্ত জয়কে মনে পুষে না রেখে তাঁদের লক্ষ্য এখন সেমি-ফাইনাল। আজ নেপালের বিপক্ষে গ্রুপ পর্বের শেষ ম্যাচ বাংলাদেশের। এই ম্যাচ জিতে গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হওয়ার হয়ে সেমিফাইনাল নিশ্চিত করাই মারিয়াদের লক্ষ্য। থিম্পুর চাংলিমিথাং স্টেডিয়ামে বাংলাদেশ সময় সন্ধ্যা সাতটায় শুরু হবে বাংলাদেশের নেপাল বধের মিশন।

টুর্নামেন্ট গোলের দিক থেকে বাংলাদেশ শীর্ষে। শীর্ষে থাকলেও মেয়েরা মোটেও আত্মতুষ্টিতে ভুগছে না। এ নিয়ে অধিয়ানক মারিয়া বলেন, ‘পাকিস্তানকে বেশি গোল দিয়েছি তার মানে এই নয় যে আমরা চ্যাম্পিয়ন হয়েছি। সামনে আমাদের প্রতিপক্ষ নেপাল ও সেমি-ফাইনাল। এই দুটো ম্যাচ জিততে হবে। এ জন্য এখনই আমরা কেউ বেশি আনন্দ করছি না। আমাদের লক্ষ্য একটাই, আমরা সব ম্যাচ জিতে ফাইনালে ওঠা।

কোচ গোলাম রব্বানী ছোটনের অধীনে মেয়েরা কয়েক বছর ধরে একের পর এক সাফল্য পেয়ে যাচ্ছে। পাকিস্তানকে ১৪ গোল দিলেও ছোটনের কাছে এটা শুধুই অতীত। পুরো ৩ পয়েন্ট নিয়ে গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হওয়াই লক্ষ্য এখন।

ঢাকায় টুর্নামেন্টের প্রথম আসরে নেপালকে ৬-০গোলে হারিয়েছিল বাংলাদেশ। যদিও সেবার নেপালের দলটি প্রায় অনভিজ্ঞ ছিল। কিন্তু এবার বেশ শক্তিশালী ও অভিজ্ঞতা সম্পন্ন একটি দল গড়েছে নেপাল। গত আসরের ৫ জন খেলোয়াড় এই দলে রয়েছে। নেপালের ফুটবল ফেডারেশন নিয়োগ দিয়েছে জাপানি টেকনিক্যাল ডিরেক্টর চাকি তাকেদাকে। এছাড়া নেপালের সাবেক স্ট্রাইকার হরি খাড়কাকে চুক্তিভিত্তিক নিয়োগ দিয়েছে নেপাল। এছাড়া কোচ গঙ্গা গুরুংতো রয়েছেই।

তবে নেপাল শক্তিশালী সামর্থ্য নিয়ে ভাবছে না বাংলাদেশের কোচ। মেয়েদের কাছে কোচ ছোটনের একটাই চাওয়া মেয়েদের স্বাভাবিক খেলা। যে স্বাভাবিক খেলা দিয়ে পাকিস্তানকে বিধ্বস্ত করে জয় ছিনিয়ে নিয়ে এসেছিল মেয়েরা।

সর্বশেষ
জনপ্রিয় খবর