শিরোনাম

ছাত্রলীগের নতুন নেতৃত্বে ময়মনসিংহের রকিব দাবি কর্মীদের

সর্বশেষ আপডেটঃ ১২:৫৬:২৮ অপরাহ্ণ - ১১ মে ২০১৮ |

ছাত্রলীগের সাইফুর রহমান সোহাগ ও এস এম জাকির হোসাইনের নেতৃত্বাধীন কমিটি বিদায় নিতে যাচ্ছে। আগামীকাল শনিবারের মধ্যে জানা যাবে নতুন কমিটির নেতৃত্বে কারা আসছেন।

গত বছরগুলোতে কর্মীদের ছাত্রত্ব, যোগ্যতা, যোগ্যতা অনুযায়ী পদপ্রাপ্তি, ছাত্রলীগে অনুপ্রবেশের মতো ঘটনায় প্রশ্নবিদ্ধ হয়েছে ছাত্রলীগ।

এমনকি ছাত্রলীগের কর্মীরাও বিভিন্ন সময়ে তাঁদের ক্ষোভ জানিয়েছেন। তাই নতুন নেতৃত্বের প্রতি ছাত্রলীগের সাধারণ কর্মীদেরও প্রত্যাশার শেষ নেই।

ছাত্রলীগের বেশ কয়েকজন কর্মীর সাথে কথা হয়। তাঁরা চান, সত্যিকারের ছাত্ররাই যাতে আগামী নেতৃত্বে আসে। একই সঙ্গে তাঁরা ছাত্রলীগে অনুপ্রবেশকারীদের  উচ্ছেদ চান।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মধুর ক্যান্টিনে কথা হয় ময়মনসিংহ থেকে আসা আনন্দ মোহন বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ শাখা ছাত্রলীগের আহ্বায়ক মো: মাহমুদুল হাসান সবুজ সঙ্গে। আগামী দিনের নতুন নেতৃত্বের কাছে প্রত্যাশা কী—জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমরা চাই ময়মনসিংহ বিভাগ থেকে ছাত্রলীগের নেতৃত্ব আসুক, বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নকে ও শেখ হাসিনার ভিশনকে বাস্তবায়ন করতে এবং আগামী দিনে যে কোনো দুঃসময়ে ছাত্রলীগ হয়ে মোকাবেলা করার মত যোগ্যতা সম্পন্ন নেতৃত্বদানকারী রকিবুল ইসলাম রকিবই যোগ্য। তিনি ছাত্রদের কল্যাণে কাজ করে যাচ্ছেন। আমরা চাই এমন কারো হাতে। কারণ ছাত্রলীগ হচ্ছে ছাত্রদের সংগঠন। এমনটাই মনে করছেন ময়মনসিংহের ছাত্রলীগ কর্মীরা।

ছাত্রলীগ কর্মী শেখ সজল বলেন, ‘আগামীকাল সম্মেলন, তাই ঢাকা এসেছি। জননেত্রী শেখ হাসিনা যাকে আমাদের নেতা হিসেবে নির্বাচন করবেন, আমরা তাঁর নির্দেশেই কাজ করব। তবে আমি চাই, সত্যিকারে বঙ্গবন্ধুর আদর্শে বিশ্বাসী ময়মনসিংহের সন্তান রকিবুল ইসলাম রকিবের হাতেই ছাত্রলীগের পতাকা তুলে দেওয়া হোক।

ছাত্রলীগ কর্মী শারমিন সুলতানা বলেন, ‘ছাত্রলীগের আগামী নেতৃত্বে যেন কোনো অনুপ্রবেশকারী না আসে। কারণ সামনে নির্বাচন। তাই আমরা আশা করি, এমন লোকদের হাতে ছাত্রলীগের নেতৃত্ব আসবে, যারা আগামী নির্বাচনে আওয়ামী লীগকে আবারও বিজয়ী করে ক্ষমতায় আনতে সঠিকভাবে কাজ করবে।

জানাযায়, ছাত্রলীগের এবারের সম্মেলনে নেতৃত্ব নির্বাচন প্রক্রিয়ায় ছাত্রলীগের রাজনীতিতে ময়মনসিংহ জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি মো: রকিবুল ইসলাম রকিব নতুন চমক হিসাবে গুরুত্বপূর্ণ পদে আসার সম্ভাবনা রয়েছে। সাংগঠনিক যোগ্যতা, দক্ষতা, দলের প্রতি নিবেদিত এবং শিক্ষার্থীদের জনপ্রিয়তার কারনে প্রথমে আনন্দ মোহন বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি নির্বাচিত করে এবং ২১দিনের মধ্যে তাকে আবারও ময়মনসিংহ জেলা ছাত্রলীগের সাধারন সম্পাদক পদে দায়িত্ব প্রদান করে। সফলতার সঙ্গে তার দায়িত্ব পালন করার ফল সরূপ বাংলাদেশ ছাত্রলীগ তাকে ময়মনসিংহ জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি পদে অলংকৃত করে।

ময়মনসিংহ জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি মো: রকিবুল ইসলাম রকিব বলেন, মুজিব আদর্শকে দারন করে পরিশ্রম, মেধা ও সাংগঠনিকভাবে একজন দক্ষ নেতা হিসাবে বিগত দিনগুলোতে সরাসরি মাঠে থেকে আন্দোলন-সংগ্রাম করেছি। এখন শুধু বঙ্গবন্ধু কন্যার কাছে একটাই দাবি আগামী দিনে যাঁরাই নেতৃত্বে আসবেন, তাঁরা যেন সবার কাছে বঙ্গবন্ধুর আদর্শকে ছড়িয়ে দিতে কাজ করেন। কারণ ছাত্রলীগ একটি ছাত্রসংগঠন।

সমাপনী সম্মেলনে নিরাপত্তা ব্যবস্থা নিশ্চিত করতে  সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের নিয়ন্ত্রণ নিয়েছে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নিরাপত্তায় নিয়োজিত স্পেশাল সিকিউরিটি ফোর্স (এসএসএফ)।

সম্মেলন সফল করতে সংগঠন থেকেও নেওয়া হয়েছে প্রস্তুতি। এখন অপেক্ষা শুধু বর্তমান কমিটির সমাপনী অনুষ্ঠানের।

সর্বশেষ
জনপ্রিয় খবর