শিরোনাম

কোটা কোন আন্দোলন নয় বরং ষড়যন্ত্রকারীদের উদাম সম্মেলন!-বললেন “রকিব”

সর্বশেষ আপডেটঃ ০১:৩১:১৭ পূর্বাহ্ণ - ০২ জুলাই ২০১৮ | ২৬
দেশের চলমান কোটা বিরোধী আন্দোলনকে কেন্দ্র করে আন্দোলনকারীরা দেশের সাধারণ শিক্ষার্থীদের মগজকে ধোলাই দিয়ে আবেগকে ম্যানডেট করে করে বিভিন্ন গুঁজবের মাধ্যমে স্থিতিশীল দেশের পরিবেশ যে অস্থিতিশীল দিকে ধাবিত হচ্ছে সেই আলোকে ময়মনসিংহ জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি রকিবুল ইসলাম রকিব তাঁর ফেইসবুক অ্যাকাউন্টে কোটা সংস্কার আন্দোলনের বিরুদ্ধে একটি স্ট্যাটাস পোস্ট করেছেন, তা হুবহু তুলে ধরা হলঃ-
কোটা_আন্দোলন_প্রসঙ্গ
আমি একজন শিক্ষিত নাগরিক। আমি একজন মুজিব আদর্শের সৈনিক, আমি দেশরত্ন শেখ হাসিনার প্রতি ভীষণ আস্থাশীল।
আমি শিক্ষার্থীদের সকল অধিকার আদায়, ন্যায়ের পক্ষে যোক্তিক লড়াই, সংগ্রাম, আন্দোলনের মধ্যেই আমার জন্ম।
আর সে অভিজ্ঞাতার আলোকেই আমি সম্পূর্ণ নিশ্চিত হয়ে’ই ধ্যর্থহীন কন্ঠে বলছি-
কোটা আন্দোলনের নামে যা হয়েছে যা হচ্ছে তা সম্পূর্ণ #বিএনপি_জামাত_শিবির মদতপুষ্ট হয়েই পরিকল্পিতভাবে হচ্ছে! এতে কিছু অনুপ্রবেশকারী অতি আবেগী, অতি আওয়ামী, অতি চেতনাধারী, অতি নামধারী মেধাবী ধারা বিতর্কিত কর্মকান্ডের মাধ্যমে #বাংলাদেশ_আওয়ামীলীগ তথা #বাংলাদেশের_সুনাম নষ্ট করার লক্ষেই এই সব চক্রান্ত চলছে।
ন্যায়ের আন্দোলন সকলের মৌলিক অধিকার।কিন্তু সময়ের আবর্তে সাধারণ শিক্ষার্থীদের মগজকে ধোলাই দিয়ে বর্তমানে যা ঘটে চলেছে তা মোটেই ন্যায়সঙ্গত নয়। যারা দেশরত্ন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতি বিশ্বাস, আস্থা রাখতে পারেনা তাদের মাঝে আবার কিসের দেশপ্রেম?
এখন সময় এসেছে এদের সম্পূর্ণরুপে রুখে দেবার।তাই কে কোন ভাইয়ের লোক; সে ভাই রাজপথে নামলো কি না নামলো সেই দিকে এখন খেয়াল রাখার সময় নাই!
আমাদের একমাত্র আশা আকাঙ্ক্ষার প্রতিক, দুঃখী মানুষের শেষ ভরসা #দেশরত্ন_শেখ_হাসিনার দিকে তাকিয়ে’ই সবাই সবার জায়গা থেকে সর্বোচ্চ প্রস্তুতি নেওয়ার উদাত্ত্ব আহবান জানাই। #ময়মনসিংহের সকল শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের প্রত্যেককে ভালোভাবে প্রস্তুত হওয়ার নির্দেশ প্রদান করছি।
“যদি সচেতন হয়ে তৈরি হউ বেশ, তবেই কিনা তৈরি হবে সোনার বাংলাদেশ”।
এর আগে শনিবার বেলা ১১ টার দিকে কোটা সংস্কার আন্দোলনকারীদের মিছিল ও সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করে। কিন্তু এতে মাত্র ২০-৩০ জন ছাত্র অংশগ্রহণ করে। বিগত ১ মাস যাবত তাদের আন্দোলন গড়ে ২০ থেকে ২৫ জন শিক্ষার্থী অংশগ্রহণ করে। এদের মধ্যে হাতেগোনা ৫-৬ জন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী আবার বাকিরা দেশের অন্যান্য শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের।
মোদ্দাকথা কোটা সংস্কার আন্দোলন এখন আর অরাজনৈতিক নেই। এটি একটি দলের ক্ষমতায় যাওয়ার সিঁড়ি হিসেবে ব্যাবহারের চেষ্টা এবং নেতাদের সংশ্লিষ্টতা এই আন্দোলনের অংশগ্রহণ সাধারণ শিক্ষার্থীদের কাছে কমিয়ে দিয়েছে। এবং তা কমতে কমতে এখন প্রায় শূন্যের কোঠায়।
 
ময়মনসিংহ জেলা ছাত্রলীগের বিপ্লবী এই সভাপতি মোঃ রকিবুল ইসলাম রকিব কোটা বিরোধী আন্দোলনের বিরুদ্ধে সোচ্চার ভুমিকা পালন করে সাধারণ শিক্ষার্থী ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর কাছে প্রশংসিত হন।
সর্বশেষ
জনপ্রিয় খবর