শিরোনাম

আগামী জুনের শেষে বাংলাদেশ ও কম্বোডিয়ার মধ্যে দ্বিপাক্ষিক বাণিজ্য চুক্তি হতে যাচ্ছে : বাণিজ্যমন্ত্রী

সর্বশেষ আপডেটঃ ১১:৫৪:০৪ অপরাহ্ণ - ২৫ এপ্রিল ২০১৮ | ১০৮

নিজস্ব প্রতিবেদক : বাংলাদেশ ও কম্বোডিয়ার মধ্যে বাণিজ্য বাড়াতে দ্বি-পাক্ষিক বাণিজ্য চুক্তি (বিটিএ) হতে যাচ্ছে। আগামী জুনের শেষে অথবা জুলাইয়ের প্রথম দিকে এ চুক্তি স্বাক্ষরের সম্ভাবনা রয়েছে।
কম্বোডিয়ায় সফররত বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ সেদেশের বাণিজ্যমন্ত্রীকে আগামী জুনের শেষে বা জুলাইয়ের প্রথম দিকে বাইলেটারেল ট্রেড এগ্রিমেন্ট (বিটিএ) স্বাক্ষরের জন্য ঢাকা সফরের আমন্ত্রণ জানিয়েছেন।
আজ ঢাকায় প্রাপ্ত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ কথা জানানো হয়।
এতে বলা হয়, বুধবার নমপেন হোটেলে কম্বোডিয়ার বাণিজ্যমন্ত্রী প্যান সোরাসাকের সাথে পূর্ব নির্ধারিত দ্বি-পাক্ষিক বৈঠকে তোফায়েল আহমেদ বলেন, কম্বোডিয়ার সাথে বাংলাদেশে বিপুল বাণিজ্য সম্ভাবনা রয়েছে। বাংলাদেশ ও কম্বোডিয়া বাণিজ্য চুক্তি স্বাক্ষর করলে বাণিজ্য বৃদ্ধি পাবে। এতে করে উভয় দেশ উপকৃত হবে। বাণিজ্যমন্ত্রী ২০১৭ সালে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কম্বোডিয়া সফরের কথা উল্লেখ করে বলেন, বাংলাদেশ-কম্বোডিয়ার মধ্যে ১টি চুক্তি এবং ৯টি সমঝোতা স্মারক (এমওইউ) স্বাক্ষরিত হয়েছে। বর্তমানে উভয় দেশের মধ্যে বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক রয়েছে। উল্লিখিত চুক্তি এবং সমঝোতাগুলো যথাযথ ভাবে কাজে লাগিয়ে উভয় দেশ উপকৃত হতে পারে এবং সম্পর্ক আরো সুদৃড় হবে।
এ সময় কম্বোডিয়ার বাণিজ্যমন্ত্রী বাংলাদেশের ব্যবসায়ীদের সেদেশে বিনিয়োগের আহবান জানিয়ে বলেন, কম্বোডিয়ায় উৎপাদিত কাসাডো থেকে উন্নত মানের ওষুধ (ক্যাপ্সুল) তৈরী করা সম্ভব। ওষুধ শিল্পের কাঁচামাল হিসেবে এগুলো ব্যবহার করে অতি অল্প খরচে উন্নমানের ওষুধ উৎপাদন করা সম্ভব। তিনি কম্বোডিয়ায় বিনিয়োগের জন্য বাংলাদেশের ব্যবসায়ীদের প্রতি আহবান জানান।
উল্লেখ্য, বর্তমানে কম্বোডিয়ার সাথে বাংলাদেশের প্রায় ৬ মিলিয়ন মার্কিন ডলার মূল্যের দ্বিপাক্ষিক বাণিজ্য রয়েছে। গত অর্থবছর বাংলাদেশ কম্বোডিয়ায় ৫ দশমিক ৩৯ মিলিয়ন মার্কিন ডলার মূল্যের পণ্য রপ্তানি করেছে, একই সময়ে মাত্র দশমিক ৪ মিলিয়ন মার্কিন ডলার মূল্যের পণ্য আমদানি করেছে। বাংলাদেশ প্রধাণত ওষুধ, তৈরী পোশাক, প্লাষ্টিক পণ্য, চামড়াজাত পণ্য এবং তামাক রপ্তানি করে আসছে।
ইন্টারন্যাশনাল চেম্বার অফ কমার্স বাংলাদেশের প্রেসিডেন্ট মো. মাহবুবুর রহমান, ভাইস প্রেসিডেন্ট মিসেস রোকেয়া আফজাল রহমান, আজিম গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক এবং ঢাকা চেম্বারের সাবেক প্রেসিডেন্ট মতিউর রহমানসহ বাংলাদেশ ব্যবসায়ী প্রতিনিধিদলের সদস্যগণ এবং থাইল্যান্ড ও কম্বোডিয়ায় নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত মিসেস সাঈদা মুনা তাসনিম এ সময় উপস্থিত ছিলেন।
বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদের আজ (২৫ এপ্রিল) কম্বোডিয়ার ফোম প্যান হোটেলে ‘ইন্টারন্যাশনাল ট্রেড, ফাইনান্স এ ডেভেলপমেন্ট অফ গ্লোবাল ভেলু চেইন’ শীর্ষক কর্মশালার উদ্বোধন করার কথা।

সর্বশেষ